ঢাকা, শুক্রবার, ২৯ মে ২০২০ | ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

 
 
 
 

গোপালগঞ্জে একটি পরিবারকে পুড়িয়ে হত্যার চেষ্টা

গ্লোবালটিভিবিডি ৬:০৯ অপরাহ্ণ, মার্চ ২৯, ২০২০

ছবি: সংগৃহীত

গোপালগঞ্জে পূর্বশত্রুতার জের ধরে একটি পরিবারকে পরিকল্পিতভাবে পুড়িয়ে হত্যার চেষ্টা করেছে দুর্বৃত্তরা।

শনিবার গভীর রাতে সদর উপজেলার আন্ধারকোঠা গ্রামের ইব্রাহীম ফকিরের বসত ঘরের চারপাশে কেরোসিন ঢেলে অগ্নিসংযোগ করে এ হত্যা চেষ্টা করা হয় বলে জানা যায়।

খবর পেয়ে রবিবার সকালে গোপালগঞ্জের বৌলতলী তদন্ত কেন্দ্রের পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে।

ভুক্তভোগী ইব্রাহীম ফকির (৫৫) বলেন, ওইদিন গভীর রাতে বৃদ্ধা মা, স্ত্রী, ২ ছেলে, ২ মেয়ে ও নাতিকে নিয়ে ঘুমিয়ে ছিলাম। ওই সময় ঘরের বারান্দায় ঘুমিয়ে থাকা তার ছেলে এসএসসি পরীক্ষার্থী বাদল ফকির আগুনের তাপ টের পেয়ে চিৎকার করতে থাকে।

চিৎকার শুনে তিনি ঘুম থেকে দ্রুত ওঠে ঘরের দরজা খুলতে চেষ্টা করেন। কিন্তু বাইরে থেকে দরজায় তালা লাগানো থাকায় তিনি তা খুলতে পারেননি।

এ সময় আগুনের লেলিহান শিখা বসত ঘরের বেড়াসহ চারিদিকে ছড়িয়ে পড়লে তিনি ঘরের পশ্চিম পাশের দরজা খুলে পরিবারের সদস্যদের নিয়ে কোনোরকমে বের হয়ে আসেন এবং প্রাণে রক্ষা পান। পরে এলাকাবাসী এগিয়ে এসে আগুন নিভাতে সক্ষম হয়।

তিনি বলেন, রাজনীতি ও স্থানীয় আধিপত্যকে কেন্দ্র করে উলপুর ইউনিয়নের ৫নং ওয়ার্ডের মেম্বার রইসুল ইসলাম মিনারের (রইস মিনার) সঙ্গে তাঁর দ্বন্দ্ব চলছিল। এক বছর আগে আওয়ামী লীগের একজন কেন্দ্রীয় নেতার সমাবেশে লোকজন নেয়াকে কেন্দ্র করে ওই দ্বন্দ্ব চরম আকার ধারণ করে।

এরপর থেকে বিভিন্ন সময় তাঁকে হুমকিও দেয়া হয়। কয়েকদিন ধরে গভীর রাতে আন্ধাকোঠা এলাকায় বহিরাগতদের আনাগোনা বেড়ে যায়। তাঁর সন্দেহ রইচ মেম্বারের লোকজন পরিকল্পিতভাবে তাঁকে পরিবারসহ আগুনে পুড়িয়ে হত্যার উদ্দ্যেশ্যে এ ঘটনা ঘটিয়েছে।

তিনি ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত করে অপরাধীদের দ্রুত আইনের আওতায় আনার দাবি জানান।

এএইচ/জেইউ

oranjee