ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ |

 
 
 
 

এবার কোয়ার্টার ফাইনালের আগে করোনাক্রান্ত দুই ফুটবলার

গ্লোবালটিভিবিডি ৫:২৯ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১০, ২০২০

ছবি- সংগৃহীত

শেষ ষোলর বাকি থাকা চার ম্যাচ হয়ে যাওয়ার পর এখন উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগের কোয়ার্টার ফাইনাল, সেমিফাইনাল ও ফাইনাল খেলতে ৮ দল যাত্রা শুরু করেছে পর্তুগালের লিসবনের উদ্দেশে। সেখানে সরাসরি নকআউট ফরম্যাটে হবে টুর্নামেন্টের বাকি থাকা সাতটি ম্যাচ।

কিন্তু এর আগেই দুঃসংবাদ এলো কোয়ার্টার ফাইনালের অন্যতম সেরা অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ (এটিএম) শিবিরে। লিসবনে কোয়ার্টার ফাইনাল ম্যাচ খেলতে যাওয়ার আগে তাঁদের দলের দুই খেলোয়াড় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। ক্লাবের পক্ষ থেকে নিশ্চিত করা হয় এ খবর।

তবে কোন দুই খেলোয়াড় করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন তা স্পষ্ট করে জানায়নি এটিএম ক্লাব কর্তৃপক্ষ। দুই খেলোয়াড়কেই নিজ নিজ বাড়িতে সেলফ আইসোলেশনে রাখা হয়েছে। এটিএমের অন্যান্য খেলোয়াড়ের বিষয়ে কী সিদ্ধান্ত হবে তা খুব শিগগিরই জানানো হবে। কেননা বৃহস্পতিবার থেকেই শুরু হয়ে যাবে কোয়ার্টার ফাইনালের লড়াই।

এটিএমের পক্ষ থেকে দেয়া আনুষ্ঠানিক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘উয়েফা প্রোটোকল মেনে লিসবন সফরের দলের সকল সদস্যকে করোনা পরীক্ষা করা হয়। মাজাদাহোনদার সিউদাদ ডেপোর্টিভায় হয়েছে এই টেস্ট। ফলাফলে দেখা গেছে, দু'জন খেলোয়াড় করোনা আক্রান্ত। তাঁদেরকে বাড়িতে আইসোলেশনে রাখা হয়েছে।’

বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, ‘দুই খেলোয়াড় করোনা আক্রান্ত হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে স্প্যানিশ ও পর্তুগিজ স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে পাঠিয়ে দেয়া হয়েছে। তারা পরবর্তী সিদ্ধান্ত জানাবে। এছাড়া বাকিদের লিসবন যাওয়ার আগে আবার পিসিআর টেস্ট করানো হবে। দু'জন আক্রান্ত হওয়ায় অনুশীলনের সূচিতেও খানিকটা পরিবর্তন আসবে।’

গত ১৯ জুলাইয়ের পর থেকে আর কোনো ম্যাচ খেলেনি অ্যাটলেটিকো। স্প্যানিশ লা লিগায় নিজেদের শেষ ম্যাচে রিয়াল সোসিয়েদাদের সঙ্গে ১-১ গোলে ড্র করেছিল তারা। চলতি সপ্তাহে ইউসিএল দিয়েই ফের মাঠে ফেরার অপেক্ষায় রয়েছে তারা। বৃহস্পতিবার রাতের ম্যাচে তাদের প্রতিপক্ষ জার্মান লেইপজিগ।

আরকে/জেইউ


oranjee