ঢাকা, সোমবার, ৮ মার্চ ২০২১ |

 
 
 
 

আজ বিজয়া দশমী

মণ্ডপে মণ্ডপে বিদায়ের সুর

গ্লোবালটিভিবিডি ৩:১৮ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২৬, ২০২০

ছবি সংগৃহীত

উৎসবের আমেজে নয় প্রার্থনায় শেষ হলো বিজয়া দশমীর আনুষ্ঠানিকতা। দশমীর সকালেই দেবীর বিহিত পূজা, অঞ্জলি প্রদান, দর্পণ ও ঘট বিসর্জনে শেষ হয় শারদীয় দুর্গোৎসবের মূল আনুষ্ঠানিকতা। ভক্তরা কামনা করেন দেবীর আশীর্বাদ, ও করোনা থেকে মুক্তি। করোনার কারণে এবার নেই আনন্দ শোভাযাত্রা। অনেকটা অনাড়ম্বরে বিসর্জনে শেষ হচ্ছে দুর্গোৎসব।

মণ্ডপে-মণ্ডপে বাজছে বিষাদের সুর। মর্তে দেবী দুর্গার আগমনে ভক্তদের মাঝে এ কয়দিন যে উচ্ছ্বাস ছিল, বিদায়বেলা সেটি রূপ নেয় বিষাদে। বিসর্জনের বাদ্যে আগামীর অপেক্ষায় ভক্তরা দেবী দুর্গাকে বিদায় জানান।

রাজধানীর ঢাকেশ্বরী জাতীয় মন্দিরে বিজয়া দশমীর আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয় সকালে দশমী পূজার মধ্যদিয়ে। নানা উপাচারে দশমী ও দর্পণ স্নানের মধ্য দিয়ে শুরু হয় বিহিত পূজার আনুষ্ঠানিকতা। পরে, শেষবারের মত দেবীর চরণে অঞ্জলি দেন ভক্তরা।

মহাদশমী তিথিতে দেবী বন্দনা, নানা আনুষ্ঠানিকতায় পূজা, অর্চনা আরাধানার পর চরণে দেয়া হয় অর্ঘ্য। শেষে দর্পণ ও ঘট বিসর্জন দেয়া হয়।

এরই মধ্যদিয়ে শেষ হয় মহাদশমীর আনুষ্ঠানিকতা। বিদায় বেলায় পুরোহিতদের প্রার্থনায় ছিলো মহামারি থেকে মুক্তির আকুতি।

এরপর দেবী দুর্গাকে সিঁদুর, মিষ্টি, ফুল ও বেলপাতা দিয়ে বরণ করে নেন নারী ভক্তরা। আড়ম্বরর্পূর্ণ না হলেও মেতে ওঠেন সিদুঁর খেলায়। গুলশান-বনানী সর্বজনীন পূজামণ্ডপেও সিঁদুর ছুঁইয়ে শঙ্খ-উলুধ্বনী; ঢাক-ঢোলের বাদ্যে দেবীকে বরণ করেন নারী ভক্তরা। তবে চিরচারিত সিঁদুর খেলার দৃশ্য এবার দেখা মেলেনি ভক্তদের মাঝে। উৎসব নয়, সকলের মাঝেই ছিলো প্রার্থনা।

এমএস


oranjee