ঢাকা, সোমবার, ১৬ মে ২০২২ | ১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ | ১৫ শাওয়াল ১৪৪৩

চুয়াডাঙ্গায় মাকে কুপিয়ে হত্যা

চুয়াডাঙ্গায় মাকে কুপিয়ে হত্যা

ছবি সংগৃহীত

রকিব হোসেন, চুয়াডাঙ্গা: চুয়াডাঙ্গা জেলা সদরের পিরোজখালী গ্রামে পুত্রের ধারালো অস্ত্রের কোপে ৫৬ বছর বয়সী মা জবেদা খাতুন নিহত হয়েছেন। শনিবার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে নিজ বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। স্থানীয়দের সহযোগিতায় পুলিশ মুকুল হোসেনকে (৩৪) গ্রেপ্তার করেছে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানিয়েছে, পিরোজখালী গ্রামের আহসান আলীর ছেলে মুকুল হোসেন এক সময় নেশাগ্রস্ত ছিলো। তার প্রথম স্ত্রীকে মেরে সে বাপের বাড়ি পাঠিয়ে দেয়। পরে বিচ্ছেদ ঘটে এবং দ্বিতীয় বিয়ে করে। দ্বিতীয় স্ত্রীকেও নির্যাতন করতে থাকে মুকুল। দ্বিতীয় স্ত্রীও শেষ পর্যন্ত টেকেনি। এরপর থেকেই মুকুল মানসিক ভারসম্যহীন মানুষের মত আচরণ করে আসছিলো। এরই এক পর্যায়ে শনিবার বাড়িতেই তার মা জবেদা খাতুনকে ধারালো দা দিয়ে এলোপাথাড়ি কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। এক পর্যায়ে মৃত্যুর কোলে ঢুলে পড়েন জবেদা খাতুন।

স্থানীয় ইউপি সদস্য আব্দুর রাজ্জাকের দাবি, খাবার খাওয়ার সময় মায়ের সাথে তার গন্ডগোল হয়। খেতে খেতেই উত্তেজিত হয়ে মাকে কুপিয়ে হত্যা করে মুকুল হোসেন। মুকুলের সন্তান স্থানীয়দেরকে বিষয়টি জানায়। পরে স্থানীয়রা এসে দেখে, মায়ের মরদেহ মেঝেতে পড়ে আছে আর ছেলে পাশের ঘরে চেয়ারে বসে আছে।

এএইচ