ঢাকা, রবিবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১ |

 
 
 
 

ভারতের পদ্মশ্রী পদক পাচ্ছেন দুই বাংলাদেশি

গ্লোবালটিভিবিডি ৭:৩৪ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ২৫, ২০২১

ছবিঃ সংগৃহীত

দুই বাংলাদেশি পেতে যাচ্ছেন ভারতের চতুর্থ সর্বোচ্চ বেসামরিক সম্মাননা 'পদ্মশ্রী-২০২১' খেতাব। তারা হলেন বাংলাদেশের সাংস্কৃতিক অঙ্গনের অন্যতম ব্যক্তিত্ব সনজীদা খাতুন এবং মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক বীর মুক্তিযোদ্ধা লেফটেন্যান্ট কর্নেল (অব.) কাজী সাজ্জাদ আলী জহির, বীর প্রতীক। 

আজ সোমবার (২৫ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় ঢাকায় নিযুক্ত ভারতীয় হাইকমিশন থেকে এই তথ্য নিশ্চিত করা হয়েছে। প্রতি বছর প্রজাতন্ত্র দিবস উপলক্ষে ভারতের সর্বোচ্চ বেসামরিক পুরস্কার হিসেবে ১৯৫৪ সাল থেকে ব্যক্তি বিশেষ এবং সংগঠনের বিভিন্ন ক্ষেত্রে অসাধারণ সাফল্যের স্বীকৃতি হিসেবে পদ্মভূষণ, পদ্মবিভূষণ এবং পদ্মশ্রী পুরস্কার দেয়া হয়। 

সনজীদা খাতুন বাংলাদেশের সাংস্কৃতিক অঙ্গনের অন্যতম ব্যক্তিত্ব। তিনি একাধারে রবীন্দ্র সঙ্গীতশিল্পী, লেখক, গবেষক, সংগঠক, সঙ্গীতজ্ঞ ও শিক্ষক। তিনি বাংলাদেশের অন্যতম সাংস্কৃতিক প্রতিষ্ঠান ছায়ানটের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য এবং বর্তমানে সভাপতি। এছাড়া তিনি জাতীয় রবীন্দ্র সঙ্গীত সম্মিলন পরিষদেরও প্রতিষ্ঠাতা সদস্য। প্রচলিত ধারার বাইরে ভিন্নধর্মী একটি শিশুশিক্ষা প্রতিষ্ঠান নালন্দার সভাপতিও তিনি। 

লেফটেন্যান্ট কর্নেল (অব.) কাজী সাজ্জাদ আলী জহির বাংলাদেশের স্বাধীনতাযুদ্ধের একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা। স্বাধীনতাযুদ্ধে তার সাহসিকতার জন্য বাংলাদেশ সরকার তাকে বীরপ্রতীক খেতাব প্রদান করে। তিনি ১৯৬৯ সালের শেষে পাকিস্তান সেনাবাহিনীতে ক্যাডেট হিসেবে যোগ দিয়েছিলেন। ১৯৭১ সালে পাকিস্তানের কাকুল সামরিক একাডেমিতে সিনিয়র ক্যাডেট হিসেবে প্রশিক্ষণরত ছিলেন। পরে মুক্তিযুদ্ধ শুরু হলে আগস্ট মাসের শেষে তিনি পাকিস্তান থেকে পালিয়ে এসে যুদ্ধে যোগ দেন। 

জেইউ

 

 


oranjee