ঢাকা, রবিবার, ৩১ মে ২০২০ | ১৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

 
 
 
 

‘করোনা নিয়ে অবসাদে’ জার্মান মন্ত্রীর আত্মহত্যা

গ্লোবালটিভিবিডি ৯:১৫ অপরাহ্ণ, মার্চ ২৯, ২০২০

করোনা পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বেগের জেরে জার্মানির এক মন্ত্রী আত্মহত্যা করেছেন। থমাস শেফার নামের ওই মন্ত্রী জার্মানির হেসে প্রদেশের অর্থমন্ত্রী ছিলেন।

ধারণা করা হচ্ছে, করোনা ভাইরাসের মহামারিতে বিপর্যস্ত অর্থনীতিকে কী করে টেনে তুলবেন এই দুশ্চিন্তা কেড়ে নিয়েছে তার প্রাণ। খবর বার্তা সংস্থা রয়টার্সের।

শনিবার ফ্রাঙ্কফুর্ট এবং মাইনজের মধ্যবর্তী হোচাইম শহরে হাইস্পিড ট্রেন লাইনের পাশ থেকে শেফারের ছিন্নভিন্ন দেহ উদ্ধার হয়। গোটা শরীর ছিন্নভিন্ন হয়ে যাওয়ায় প্রথমে তাকে চেনা যাচ্ছিলো না। মনে করা হচ্ছে, চলন্ত ট্রেনের সামনে ঝাঁপ দিয়েই তিনি আত্মহত্যা করেছেন।

ডয়েচ ভেলের খবরে বলা হয়, চলন্ত ট্রেনের সামনে ঝাঁপ দিয়েই তিনি আত্মঘাতী হন বলে প্রাথমিক তদন্তে জানা গেছে। বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

স্থানীয় সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, করোনার প্রকোপ থেকে অর্থনীতিকে কিভাবে বাঁচাবেন তা নিয়ে দুশ্চিন্তায় ভুগছিলেন ৫৪ বছরের শেফার। করোনা ঠেকাতে আর্থিক সহায়তা নিয়ে সম্প্রতি বিবৃতিও দিতে দেখা যায় তাকে।

হেসে প্রদেশের প্রধান ভলকার বুফিয়ের শেফারের মৃত্যুতে শোকপ্রকাশ করেছেন। সংবাদমাধ্যমে তিনি বলেন, অত্যন্ত দুঃখজনক ঘটনা। এখনও বিশ্বাস করে উঠতে পারছি না।

দীর্ঘ ১০ বছর হেসের অর্থ মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বে ছিলেন শেফার। কীভাবে করোনা পরিস্থিতির মোকাবেলা করা যায়, তা নিয়ে দিন-রাত তিনি কাজ করছিলেন বলেও জানান বুফিয়ের।

তিনি বলেন, নিশ্চয়ই দুশ্চিন্তায় ভুগছিলেন তিনি। এই কঠিন সময়ে তার মতো একজনকে খুব দরকার ছিল আমাদের।

এমএস


oranjee