ঢাকা, বুধবার, ৩ জুন ২০২০ | ১৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

 
 
 
 

চেয়ারম্যান ও স্থানীয়দের হত্যা করে লাশ গুমের হুমকি রোহিঙ্গা নেতার

গ্লোবালটিভিবিডি ৫:১৪ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ২১, ২০২০

ছবি- সংগৃহীত

জসীম উদ্দীন, কক্সবাজার :কক্সবাজারের উখিয়া -টেকনাফের শরণার্থী ক্যাম্পের আশ্রিত রোহিঙ্গাদের অত্যাচারে অতিষ্ঠ স্থানীয়রা। বিভিন্ন সময় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে খুন খারাপিতে জড়িয়ে পড়ছে রোহিঙ্গারা। স্থানীয়দের কোন বিষয়ে রোহিঙ্গাদের মতের অমিল হলে দলবেঁধে মারধর করে উল্লাস করে রোহিঙ্গারা। এর পরও স্থানীয়দের সহ্য করা ছাড়া কিছুই করার থাকেনা।

এবার আরও বেশি দুঃসাহস দেখালেন রোহিঙ্গাদের এক নেতা। উখিয়ার পালংখালী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ও স্থানীয়দের সবাইকে হত্যা করে লাশ গুম করার হুমকি দিয়েছেন তিনি। সোমবার জনসম্মুখে এবং গোয়েন্দা সংস্থার এক সদস্যের উপস্থিতিতে ১৪নং ক্যাম্পের মাঝি হামিদ এই ধরনের হুমকি প্রদান করেন।

স্থানীয়দের দাবি, সম্প্রতি নতুন করে রোহিঙ্গা প্রবেশে আশংঙ্কায় স্থানীয়দের সঙ্গে নিয়ে রোহিঙ্গাদের প্রবেশ পথে পাহারা দিচ্ছে চেয়ারম্যান গফুর উদ্দিন চৌধুরী। তৎপরতা চালাচ্ছেন করোনা ইস্যুতে রোহিঙ্গাদের জনসমাগম ও ক্যাম্পের বাইরে চলাচল ঠেকাতে। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে রোহিঙ্গা নেতা হত্যা ও লাশ গুমের হুমকি দেন।

বিষয়টি নিয়ে ক্যাম্প ইনচার্জ বরাবর লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন গফুর উদ্দিন চৌধুরী। তিনি বলেন, এর আগে শুধু সোমবার নয় একাধিকবার একই ধরনের হুমকি দিয়েছেন রোহিঙ্গারা। স্থানীয়দের চেয়ে রোহিঙ্গারা কয়েকগুণ বেশি হওয়ায় তাদের মারধর ও অত্যাচার সহ্য করে আমাদের চলতে হয়।

তিনি বলেন, সম্প্রতি তাদের মাধ্যমে করোনা ছড়িয়ে পড়ার ভয়ে রোহিঙ্গাদের জনসমাগম ও নতুন করে অনুপ্রবেশ ঠেকানো চেষ্টা করি। কিন্তু রোহিঙ্গারা তা মেনে নিতে পারছে না। তাই আমাকেসহ স্থানীয় সবাইকে গুম ও হত্যার হুমকি দেন।

আরকে/জেইউ


oranjee