ঢাকা, সোমবার, ২৪ জুন ২০১৯ | ১০ আষাঢ় ১৪২৬

 
 
 
 

নিখোঁজের ৬ দিন পর টয়লেটের ট্যাংক থেকে লাশ উদ্ধার ছাগলনাইয়ায়

গ্লোবালটিভিবিডি ৮:৪১ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১০, ২০১৯

ফেনী প্রতিনিধি: ফেনীর ছাগলনাইয়ায় নিখোঁজের ছয় দিন পর বাড়ির টয়লেটের সেফটি ট্যাংক থেকে আবুল কালাম (৫৬) নামে এক সেনাবাহিনীর অসামরিক সদস্যের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। আজ বৃহস্পতিবার বিকালে লাশ উদ্ধার করা হয়। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নিহতের স্ত্রী রেখা আক্তার ও ছেলে হাসানকে থানায় নেয়া হয়েছে।

পুলিশের ধারনা হত্যাকান্ডের ঘটনা হতে পারে। ছাগলনাইয়া থানার ওসি এমএম মুর্শেদ পিপিএম জানান, পারিবারিক কলহের জের ধরে আবুল কালাম গত শুক্রবার তার স্ত্রীকে মারধর করেন। ওইদিনই সন্ধ্যায় আবুল কালাম নিখোঁজ হন। তার মোবাইল ফোনও বন্ধ ছিল। তাকে ৬ দিন ধরে বহু খোঁজাখুঁজি করা হয়। তিনি আরো জানান, নিহতের মাথার পেছনে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, বৃহস্পতিবার আবুল কালামের ছোট ভাই আবু তাহেরের স্ত্রী বাড়ির টয়লেটের সেফটি ট্যাংকে ঢাকনা খোলা দেখতে পান। তার সন্দেহ হলে বাড়ির লোকজনের সহায়তায় তিনি ইউপি সদস্যকে বিষয়টি জানান। খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। নিহতের ছোট বোন জরিনা আক্তার জানান, শুক্রবার রাত থেকে তার ভাই নিখোঁজ ছিলেন। কালামের দুই সংসার ছিল। দ্বিতীয় স্ত্রী ঢাকায় বসবাস করেন। এ সংসারে ১ ছেলে ১ মেয়ে রয়েছে। প্রথম স্ত্রী বাড়িতে থাকেন।

এ সংসারে ৩ ছেলে ২ মেয়ে রয়েছে। তবে জরিনা পারিবারিক কলহ কিংবা লাশ উদ্ধারের বিষয়ে কোন মন্তব্য না করলেও দুই সংসারের কারণে সবসময় ঝগড়াবিবাদ লেগে থাকত বলে স্থানীয় লোকজন জানান। আবুল কালাম সেনাবাহিনীর অসামরিক অবসরপ্রাপ্ত কর্মচারী ছিলেন । তিনি সেখানে বাবুর্চির কাজ করতেন। আবুল কালাম মধুগ্রামের মিদ্দা বাড়ির মৃত সামছুল হকের ছেলে।

এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে থানার ওসি জানান।


oranjee