ঢাকা, মঙ্গলবার, ১০ ডিসেম্বর ২০১৯ | ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

 
 
 
 

পাবনায় অভ্যন্তরীণ বাস চলাচল বন্ধ : যাত্রীসহ পরীক্ষার্থীরা দুর্ভোগে

গ্লোবালটিভিবিডি ৩:৫০ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১৯, ২০১৯

ছবি সংগৃহীত

পাবনা প্রতিনিধি: নতুন সড়ক পরিবহণ আইন সংশোধনের দাবিতে পাবনায় মঙ্গলবার (১৯ নভেম্বর) সকাল থেকে বাস চালক-শ্রমিকদের কর্মবিরতি শুরু হয়েছে। এতে করে পাবনা থেকে আভ্যন্তরীণ ও দুরপাল্লার রুটে বাস চলাচল আংশিক বন্ধ রয়েছে।

সকালে পাবনার কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, লোকাল বাস চলাচল বন্ধ। এতে করে পথ চলতি মানুষ গন্তব্যে যেতে দুর্ভোগে পড়েন। বিশেষ করে চলতি প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী (পিইসি) পরীক্ষায় অংশগ্রহণকারী শিক্ষার্থী, দায়িত্বপালনকারী শিক্ষক এবং অভিভাবকরা মহা সমস্যায় পড়েন। ব্যাটারি চালিত অটোবাইকে করে অনেকে গন্তব্যে যাওয়ার চেষ্টা করেন।

টার্মিনাল থেকে চিনাখড়ার যাত্রী ও পিইসি পরীক্ষায় দায়িত্বপালনকারী স্কুল শিক্ষক জহুরুল ইসলাম বলেন, তিনি তিনগুণ বেশি ভাড়া দিয়ে করিমনে করে পাবনা শহর থেকে গন্তব্যে পৌছান। একই সমস্যার কথা জানান, সাঁথিয়ার শিক্ষক আ: কুদ্দুস। তিনি জানান, হঠাৎ ধর্মঘটে তারা শিক্ষার্থী নিয়ে কেন্দ্রে যেতে দুর্ভোগের শিকার হয়েছেন।

কর্মবিরতি পালন করা চালক শ্রমিকদের দাবি, নতুন সড়ক পরিবহণ আইন সংশোধন করতে হবে। কারণ দুর্ঘটনা ঘটলে গাড়ির চালক ৫ লাখ টাকা জরিমানা দেবেন এটা মেনে নেয়া যায়না। তার আগে সড়ক মহাসড়কগুলোতে উন্নয়ন ঘটাতে হবে। মহাসড়কে সাধারণ মানুষ, ছোট গাড়ি ও বড় গাড়ি চলাচলের জন্য আলাদা লেন করতে হবে।

এদিকে কর্মবিরতি উপেক্ষা করে চালক শ্রমিকদের ২/১টি বাস চলতে দেখা গেছে। কিন্তু সেগুলোতে তিল ধারণের ঠাঁই না থাকায় লোকাল যাত্রীরা উঠতে পারেননি। ২/১টি বাস চলা নিয়ে চালক শ্রমিকদের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দেয়। যারা বাস চালাচ্ছেন তাদের বাধা দেন কর্মবিরতি পালন করা চালক শ্রমিকরা।

এদিকে ,অভ্যন্তরীণ রুটে বাস চলাচল বন্ধ থাকলেও দুরপাল্লার বাসগুলো ঢাকাসহ বিভিন্ন স্থানে চলাছল করছে স্বাভাবিকভাবে। এ নিয়ে শ্রমিক নেতারা মুখ খুলতে রাজি হননি। তবে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন জানিয়েছেন, এটা সাংগঠনিক অন্দোলন নয়। বিচ্ছিন্নভাবে কর্মসূচি চলছে। এজন্য ২/ ১টি গাড়ি চলছে।

এআইজে/আরকে


oranjee