ঢাকা, সোমবার, ২২ জুলাই ২০১৯ | ৭ শ্রাবণ ১৪২৬

 
 
 
 

তিস্তার পানি বাড়ছে : ডালিয়া-দোয়ানি পয়েন্টে রেড এলার্ট

গ্লোবালটিভিবিডি ১:১৭ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ১৩, ২০১৯

ফাইল ছবি

নীলফামারির ডালিয়া পয়েন্টে তিস্তার পানি বেড়ে বিপৎসীমার ৪৬ সেন্টিমিটার এবং লালমনির হাটের দোয়ানি পয়েন্টে ৪৮ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। ওই এলাকাগুলোতে মাইকিং করে সাধারণ মানুষকে নিরাপদ স্থানে সরে যেতে বলেছে প্রশাসন, জারি করা হয়েছে রেড এলার্ট।

বন্যা কবলিত এলাকার বাসিন্দারা জানান, শুক্রবার দুপুরের পর প্রশাসনের পক্ষ থেকে ১০ কেজি করে চাল ত্রাণ হিসেবে দেয়া হয়েছে, তবে তা পর্যাপ্ত নয়। এদিকে, তিস্তার পানি বাড়ার কারণে নতুন নতুন এলাকা প্লাবিত হচ্ছে।

ভারতের গজল ডোবা ব্যারেজে তিস্তার পানি বিপদসীমা অতিক্রম করায় ওই ব্যারেজের গেট খুলে দেওয়ায় ডালিয়া পয়েন্টে তিস্তার পানি প্রবাহ বেড়েছে বলে দাবি করেছেন ডালিয়া ব্যারেজ কর্তৃপক্ষ।

দেশের উত্তর-পূর্ব এবং দক্ষিণ-পূর্ব অঞ্চলেও ৯টি নদ-নদীর পানি বেড়ে বিপদসীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। ফলে বেশ কটি অঞ্চল বন্যা কবলিত হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। গত কয়েক দিনে ভারী বৃষ্টির ফলে বন্যা কবলিত হয়েছে দেশের বেশ কটি অঞ্চল। পানিবন্দী হয়ে পড়েছে এসব এলাকার বহু মানুষ।

এ অবস্থায় বন্যা মোকাবিলায় পূর্ব প্রস্তুতি গ্রহণের লক্ষ্যে শুক্রবার আন্তঃমন্ত্রণালয় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা সমন্বয় কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয়। বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের সব ধরণের সহযোগিতা দেয়ার নির্দেশ দিয়েছে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়।

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. এনামুর রহমান জানান, ‘আগামী কয়েক দিন আরো ভারী বৃষ্টি হতে পারে, অতিবৃষ্টির কারণে বেশ কটি অঞ্চলে বন্যার আশঙ্কার পাশাপাশি বন্যাকবলিত অঞ্চলে পরিস্থিতি আরও অবনতির দিকে যাবে। বন্যাদুর্গতদের রক্ষায় সব রকম ব্যবস্থা নিয়েছে সরকার’।

এমএস


oranjee