ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৯ | ২ কার্তিক ১৪২৬

 
 
 
 

ফেনীতে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে বিজয়ী হলেন যারা

গ্লোবালটিভিবিডি ৬:২৪ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ০১, ২০১৯

ছবি- সংগ্রহ

ফেনী প্রতিনিধি: উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে রোববার ফেনীর ৫ উপজেলায় চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যান ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগ সমর্থিতরাই জয়ী হয়েছে। রোববার সন্ধ্যায় জেলা রিটানিং কর্মকর্তা পিকেএম এনামুল করিম ও নাছির উদ্দিন পাটোয়ারী বেসরকারীভাবে বিজয়ীদের নাম ঘোষণা করেন।

ফেনী সদর উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে (ইভিএম) ভোট অনুষ্ঠিত হয়েছে। এখানে ১২৬ কেন্দ্রে জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আবদুর রহমান বি.কম (নৌকা) প্রতিকে ৪১ হাজার ৭শ ৬৮ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন। একমাত্র প্রতিদ্বন্ধি স্বতন্ত্র প্রার্থী ফেনী জেলা আ.লীগ সদস্য আজহারুল হক আরজু পেয়েছেন ৫ হাজার ২শ ৫০ ভোট।

এখানে আওয়ামী লীগের দুই প্রার্থী ভাইস চেয়ারম্যান পদে একেএম শহীদ খোন্দকার ও নারী ভাইস চেয়ারম্যান পদে জোসনা আরা বেগম জুসি বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হন।

সোনাগাজী উপজেলা চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী জহির উদ্দিন মাহমুদ লিপটন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন।

উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে নির্বাচনে ৬৮টি কেন্দ্রে শাখাওয়াতুল হক বিটু (তালা) পেয়েছেন ৮২ হাজার ৭শ ১ ভোট। নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি দিন মোহাম্মদ (টিউবওয়েল) ৩ হাজার ৬শ ৮৬ ভোট। নারী ভাইস চেয়ারম্যান পদে জোবেদা নাহার মিলি (কলস) পেয়েছেন ৮২ হাজার ৬শ ৬ ভোট।

নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি মোর্শেদা আক্তার (পদ্ম ফুল) পেয়েছেন ৩ হাজার ৬শ ৫ ভোট। দাগনভূঞায় চেয়ারম্যান পদে আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থী দিদারুল কবির রতন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন।

ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৬৪টি কেন্দ্রে আওয়ামীলীগ সমর্থিত মোহাম্মদ শাহীন মুন্সী ৭৪ হাজার ২শ ৭৬ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন। প্রতিদ্বন্দ্বি জাতীয় পার্টির এডভোকেট রবিউল হক রবি পেয়েছেন ৩ হাজার ৫শ ২০ ভোট।

নারী ভাইস চেয়ারম্যান আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থী রোখসানা সিদ্দিকী ৭৩ হাজার ৭শ ২৩ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন। প্রতিদ্বন্দ্বি জাতীয় পার্টির ফারহানা নিগার সুলতানা পেয়েছেন ৩ হাজার ৮শ ৯৬ ভোট।

ফুলগাজী উপজেলায় ৩২টি কেন্দ্রে আওয়ামীলীগ সমর্থিত চেয়ারম্যান প্রার্থী আবদুল আলিম (নৌকা) ৩৬ হাজার ৯শ ৬৪ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। সদ্য নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ানো স্বতন্ত্র প্রার্থী রামিম হোসেন (কাপ পিরিস) পান ৬শ ২৯ ভোট। ভাইস চেয়ারম্যান পদে আবুল আলম আজমির (তালা) ৩৪ হাজার ৯শ ৬৫ ভোট প্রতিদ্বন্দ্বি অনিল বণিক (টিয়া পাখি) পান ২ হাজার ৩শ ৯৫ ভোট। নারী ভাইস চেয়ারম্যান পদে মঞ্জুরা আজিজ (কলস) ৩৫ হাজার ৬শ ১৩ ভোট ও প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী বিবি মরিয়ম (ফুটবল) পান ২ হাজার ২ ভোট।

উল্লেখ্য, ফেনীর ৬টি উপজেলার মধ্যে বাকী পরশুরাম উপজেলা চেয়ারম্যানসহ সব কটি পদে আওয়ামীলীগ প্রার্থীরা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হন। অপর দিকে উচ্চ আদালত ছাগলনাইয়া উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে মেজবাউল হায়দার চৌধুরী সোহেলকে বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় চেয়ারম্যান হিসেবে রিটার্নিং কর্মকর্তার আদেশকে বৈধ বলে রায় দিয়েছেন এবং বাকি পদে নির্বাচন স্থগিত রয়েছে।

একেএম/এমএস


oranjee